অশ্লীল ছবি দেখিয়ে মেয়ের সঙ্গে ‘যৌন সম্পর্ক’-এর চেষ্টা সত্-বাবা’র !

মোবাইলে অশ্লীল ছবি দেখিয়ে নাবালিকা মেয়ের শ্লীলতাহানি করার অভিযোগ উঠল সত্-বাবার বিরুদ্ধে। এই ঘটনা সামনে আসার পরই গণপিটুনির শিকার হন অভিযুক্ত বাবা। ঘটনাটি ঘটেছে ভারত,উত্তর ২৪ পরগনার হাবড়ায়।

হাবড়ার শ্রীনগর ৩০ নম্বর রেলগেটের বাসিন্দা অর্চনা মিস্ত্রি। জানা গেছে, স্বামী চলে যাওয়ার পর থেকে দুই মেয়েকে নিয়ে একাই থাকতেন অর্চনা। বেশ কিছু একাই ছিলেন অর্চনা। পরে তাঁর থেকে বয়সে ৫ বছরের বড় নলিনী পালের সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন বছর ৪০-এর অর্চনা। তারপর থেকে দুই মেয়েকে নিয়ে নলিনী পালের সঙ্গেই থাকতে শুরু করেন অর্চনা।

লোকের বাড়িতে আয়ার কাজ করে দিন গুজরান করতেন অর্চনা। ইদানিং তাঁর পাশাপাশি বড় মেয়েও আয়ার কাজে যোগ দিয়েছিল। মা ও দিদি কাজে বেরিয়ে গেলে বাড়িতে একাই থাকত বছর দশেকের ছোট মেয়ে। অভিযোগ, বাড়িতে একা থাকার সুযোগ নিয়েই নাবালিকা মেয়ের শ্লীলতাহানি করতেন সত্-বাবা। মোবাইলে অশ্লীল ছবি দেখিয়ে নাবালিকার মেয়ের সঙ্গে নলিনী পাল যৌন সম্পর্ক স্থাপনের চেষ্টা করতেন। দীর্ঘদিন ধরেই চলছিল এঘটনা।

বুধবার সামনে আসে সত্ -বাবার হাতে নাবালিকা মেয়ের শ্লীলতাহানির ঘটনাটি। এরপরই বুধবার রাতে স্থানীয়দের হাতে গণপিটুনির শিকার হন অভিযুক্ত বাবা নলিনী পাল। খবর পেয়ে পুলিস গিয়ে অভিযুক্তকে উদ্ধার করে। গুরুতর আহত অবস্থায় বর্তমানে হাবড়া হাসপাতালে চিকিত্সাধীন অভিযুক্ত। নির্যাতিতা নাবালিকার অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করেছে পুলিস।

 

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*