মুখের অবাঞ্ছিত লোম, তৈলাক্ত ত্বক দূর করতে ডিম এর ম্যাজিক,

মাছ, মাংসে অরুচি বা আপত্তি থাকতে পারে, কিন্তু ডিম ভালবাসেন না এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া বেশি কঠিন। সকালের জলখাবার থেকে নৈশভোজের কোনও মুখরোচক পদ— সবেতেই ডিম রয়েছে। আট থেকে আশি, সকলেরই ডিম বেশ পছন্দের তালিকায় রয়েছে। তবে শুধু শরীর-স্বাস্থ্য বা স্বাদের জন্যই নয়, ত্বকের জন্যেও ডিম অত্যন্ত উপকারী একটি উপাদান। ত্বকের স্বাস্থ্য ফেরাতেও কাজে লাগাতে পারেন ডিম। ডিমের সাদা অংশে থাকা ভিটামিন এবং খনিজ উপাদান ত্বকের পরিচর্যায় খুবই উপকারী। তৈলাক্ত ত্বক, মুখের অবাঞ্ছিত লোম বা ব্রণ-ফুসকুড়ির সমস্যায় আর পার্লারে ছুটতে হবে না। জেনে নিন মুখের ত্বকের কোন সমস্যায় কী ভাবে ডিম কাজে লাগাতে পারেন…

তৈলাক্ত ত্বকে একাধিক সমস্যা মাথা চাড়া দেয়। ব্রণ-ফুসকুড়ি, ব্ল্যাক হেডস, কালচে ছোপ ইত্যাদি নানা সমস্যা হতে পারে তৈলাক্ত ত্বকে। ডিমের সাদা অংশ ব্যবহার করলে অত্যধিক তৈলাক্ত ত্বকের সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যেতে পারে।

প্রথমে উষ্ণ জল দিয়ে মুখ ভাল করে ধুয়ে ফেলুন। এ বার ডিমের সাদা অংশ পাতলা করে মুখে প্রলেপ দিয়ে কিছু ক্ষণ রেখে দিন। এ বার ওই প্রলেপ শুকিয়ে গেলে, ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। মুখ মোছার জন্য একটি নরম তোয়ালে ব্যবহার করুন। তবে বেশি ঘষে মুখ মুছবেন না।

মুখের অবাঞ্ছিত লোম অপসারণ:

মুখের ত্বকের অতিরিক্ত লোম আমাদের সৌন্দর্যে অন্তরায় হয়ে দাঁড়ায়। বিশেষ করে মহিলাদের ক্ষেত্রে তো অবশ্যই এটি একটি সমস্যা। তাই অনেক মহিলারাই পার্লারে গিয়ে থ্রেডিং করে থাকেন। তবে ডিমের সাদা অংশ ব্যবহার করেও মুখের ক্ষুদ্র অবাঞ্ছিত লোম দূর করা সম্ভব। সাধারণত গাল, কপাল বা ঠোঁটের উপরের অংশে অবাঞ্ছিত লোমের আধিক্য দেখা যায়।

প্রথমে একটি ব্রাশ দিয়ে ডিমের সাদা অংশ পাতলা করে মুখে মেখে নিন। শুকিয়ে গেলে আরও একবার মাখুন। এই ভাবে ২-৩ বার করে ডিমের সাদা অংশ মেখে মাস্ক তৈরি করে কিছু ক্ষণ রেখে দিন। ওই প্রলেপ সম্পূর্ণ শুকিয়ে গেলে, শুকনো চামড়ার মতো করে টেনে তুলে ফেলুন। দেখবেন মুখের অবাঞ্ছিত লোম আর নেই।

ব্রণ-ফুসকুড়ির সমস্যায়:

তৈলাক্ত ত্বকে, ধুলো-ময়লা জমে ব্রণ-ফুসকুড়ি সৃষ্ট হতে পারে। ডিমের সাদা অংশ ব্যবহার করলে ত্বকের অতিরিক্ত তৈলাক্ত ভাব মুহূর্তেই দূর হবে। তাই ব্রণ-ফুসকুড়ির সমস্যার মোকাবিলায় ডিমের সাদা অংশ ব্যবহার করা যেতে পারে। ব্রণ আক্রান্ত অংশগুলিতে ডিমের সাদা অংশের প্রলেপ লাগিয়ে দিন। তবে খেয়াল রাখবেন, কোনও শক্ত ব্রাশ দিয়ে নয়, পরিষ্কার আঙুলের ডগা দিয়ে আলতো ভাবে ব্রণ আক্রান্ত অংশগুলিতে ডিমের সাদা অংশের প্রলেপ লাগান। দ্রুত ভাল ফল পেতে এর সঙ্গে টক দই, দারচিনির গুঁড়ো বা হলুদ যোগ করতে পারেন।

(সূত্রঃজি২৪ঘণ্টা)

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*